ঢাকা ০১:১২ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪, ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
Logo পীরগঞ্জে ভোটগ্রহণ কাল, কর্মকর্তা নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ Logo বিরামপুরে দুর্নীতি প্রতিরোধ বিষয়ক রচনা ও বিতর্ক প্রতিযোগিতা ২০২৪ অনুষ্ঠিত , Logo ২৪ ঘন্টার মধ্যে রেজিয়া হত্যার রহস্য উদঘাটন এবং ০২ আসামি গ্রেফতার Logo বিরামপুরে পুলিশ বক্স ও বিট পুলিশিং কার্যালয়ের উদ্বোধন Logo স্মার্ট বাংলাদেশ গড়তে হলে, স্মার্ট শিক্ষক হতে হবেঃ–এমপি মাজহারুল ইসলাম Logo ঠাকুরগাঁওয়ের আকচা ইউনিয়ন পরিষদের উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণা Logo ঠাকুরগাঁওয়ে পুলিশের অভিযানে ৬ জন গ্রেফতার – মাদক উদ্ধার ! Logo তাহিরপুরে দুপুর গড়ালেও খোলা হয়নি বিদ্যালয়, সাংবাদিকদের গালিগালাজ করেন সহকারী শিক্ষক Logo রাণীশংকৈলে সেই স্বর্ণের পাহাড় ঘিরে রেখেছে পুলিশ, মাটি খুঁড়তে গেলেই গুনতে হচ্ছে জরিমানা Logo শিশুর মুখে সিগারেট, পুরুষাঙ্গে ইট বেঁধে ভিডিও, গ্রেপ্তার তিন কিশোর
নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ::
জনপ্রিয় দৈনিক আজকের ঠাকুরগাঁও পত্রিকায় আপনাকে স্বাগতম... উত্তরবঙ্গের গণমানুষের ঠিকান এই স্লোগানকে সামনে রেখে দেশ জনপ্রিয় পত্রিকা দৈনিক আজকের ঠাকুরগাঁও এর জন্য, দেশের প্রতিটি জেলা, উপজেলা, বিশ্ববিদ্যালয় ও সরকারি কলেজে একযোগে সাংবাদিক নিয়োগ চলছে। আপনি যদি সৎ ও কর্মঠ হোন আর অনলাইন গনমাধ্যমে কাজ করতে ইচ্ছুক তবে আবেদন করতে পারেন। আবেদন পাঠাবেন নিচের এই ঠিকানায় ajkerthakurgaon@gmail.com আমাদের ফেসবুল পেইজঃ https://www.facebook.com/ajkerthakurgaoncom প্রয়োজনে যোগাযোগ করুন মোবাইল : ০১৮৬০০০৩৬৬৬

শীতের রাতে ইউএনওর কম্বল বিতরণ

এস এম মাসুদ রানা বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি
  • আপডেট সময় : ০৪:০৮:১২ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২৪
  • / 45
আজকের ঠাকুরগাঁও অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

কনকনে ঠান্ডা হিমেল বাতাস বইছে উত্তরের জেলা দিনাজপুরে। দেশের এই জেলাটি হিমালয় পর্বতের কাছাকাছি হওয়ায় এই জেলায় শীতের তীব্রতা একটু বেশি। এরই মধ্যে গত চার-পাঁচ দিন থেকে সূর্যের দেখা মিলছে না। গতকাল এ জেলায় দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৮.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আজ ও জেলাতে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৮.০৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এতে বেশি কাবু হয়েছে শিশু ও বয়স্করা। এমন কনকনে শীতের রাতে দিনাজপুরের হাকিমপুর (হিলি) উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা অমিত রায় শীত বস্ত্র (কম্বল) নিয়ে রাতের অন্ধকারে ঘুরে ঘুরে সরকারি আশ্রায়ন প্রকল্পে বসবাসরত অসহায় শীতার্ত পরিবারের মাঝে কম্বল বিতরণ করেন।

রবিবার (১৪ জানুয়ারি) রাতে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে উপজেলার আলিহাট ইউনিয়নের বাওনা আদর্শ গ্রাম ও মনশাপুর আশ্রায়ন এবং বোয়ালদাড় ইউনিয়নের বৈগ্রাম আবাসন প্রকল্পে বসবাসরত অর্ধশতাধিক অসহায় শীতার্ত পরিবারের পাশে শীত বস্ত্র নিয়ে হাজির হন মানবিক ইউএনও অমিত রায়। পরে তিনি অসহায় শীতার্ত পরিবারের সদস্যদের শীত বস্ত্র কম্বল দিয়ে জড়িয়ে দেন।

রাতে কম্বল বিতরণকালে আলিহাট ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আ. লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু সুফিয়ান, ইউপি সদস্য হারুন উর রশিদ, ইমরান আলী এবং বোয়ালদাড় ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আ. লীগের সভাপতি ছদরুল ইসলাম, ইউপি সদস্য বকুল হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

কনকনে শীতের রাতে কম্বল পেয়ে সুইটি বেগম বলেন, রাতে ভাত খেয়ে সরকারি ঘুরে শুয়ে আছি হঠাৎ গাড়ির শব্দ। ঘুম থেকে উঠে দেখি ইউএনও স্যার কম্বল নিয়ে আমাদের আদর্শ গ্রামে এসেছেন। কনকনে শীত ও ঠান্ডা বাতাস বইছে এমন সময়ে গরমের কাপড় কম্বল পেয়ে আমি খুবই খুশি। আমি কিছু দিন পূর্বে স্বামী সন্তান নিয়ে খুবই কষ্টে ছিলাম। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ উপহার সরকারি ঘর পেয়ে আমি এখন স্বামী সন্তান নিয়ে খুবই আরামে আছি। গত কয়েক দিন থেকে আমাদের এই এলাকায় খুবই ঠান্ডা পড়েছে। কনকনে ঠান্ডায় ঘর থেকে বাহির হতে পারছি না। এমন শীতের রাতে হঠাৎ গরম বস্ত্র কম্বল পেয়ে আমি আনন্দিত। আমি ইউএনও স্যার ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্য দোয়া করি আল্লাহ যেন তাদের ভালো করেন।

ইউএনও অমিত রায় জানান, এই শীতের মধ্যে সবচেয়ে বেশি কষ্টে থাকে ছিন্নমূল অসহায় দরিদ্র মানুষগুলো। সরকারি আশ্রায়ন প্রকল্পে বসবাসরত মানুষগুলো এমনিতেই অসহায় ভাবে জীবন-যাপন করে থাকে। তাই জেলা প্রশাসক শাকিল আহম্মেদ মহোদয় এর দিক নির্দেশনা মোতাবেক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ উপহার শীতার্তদের জন্য কম্বল সবার আগে এদের মাঝে বিতরণ করতেছি।

দিনের বেলায় এ সকল লোকজন বিভিন্ন জায়গায় পেটের দায়ে কাজে ব্যস্ত থাকে বলে রাতের বেলায় খুঁজে খুঁজে তাদের হাতে কম্বল দিচ্ছি। ৬০ জন শীতার্ত পরিবারের সদস্যদের মাঝে কম্বল বিতরণ করেছি। ইতিমধ্যে উপজেলার একটি পৌর সভা ও তিনটি ইউনিয়নে আশ্রায়ন প্রকল্প সহ দুই হাজার শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। এ কম্বল বিতরণ চলমান থাকবে বলে উল্লেখ্য করে সমাজের বৃত্তবানদেরকে এসকল অসহায় শীতার্তদের পাশে দাঁড়ানোর আহবান জানান তিনি

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য

বার্তা সম্পাদক

দৈনিক আজকের ঠাকুরগাঁও এর বার্তা সম্পাদক
ট্যাগস :

শীতের রাতে ইউএনওর কম্বল বিতরণ

আপডেট সময় : ০৪:০৮:১২ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ জানুয়ারী ২০২৪

কনকনে ঠান্ডা হিমেল বাতাস বইছে উত্তরের জেলা দিনাজপুরে। দেশের এই জেলাটি হিমালয় পর্বতের কাছাকাছি হওয়ায় এই জেলায় শীতের তীব্রতা একটু বেশি। এরই মধ্যে গত চার-পাঁচ দিন থেকে সূর্যের দেখা মিলছে না। গতকাল এ জেলায় দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৮.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আজ ও জেলাতে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৮.০৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এতে বেশি কাবু হয়েছে শিশু ও বয়স্করা। এমন কনকনে শীতের রাতে দিনাজপুরের হাকিমপুর (হিলি) উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা অমিত রায় শীত বস্ত্র (কম্বল) নিয়ে রাতের অন্ধকারে ঘুরে ঘুরে সরকারি আশ্রায়ন প্রকল্পে বসবাসরত অসহায় শীতার্ত পরিবারের মাঝে কম্বল বিতরণ করেন।

রবিবার (১৪ জানুয়ারি) রাতে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে উপজেলার আলিহাট ইউনিয়নের বাওনা আদর্শ গ্রাম ও মনশাপুর আশ্রায়ন এবং বোয়ালদাড় ইউনিয়নের বৈগ্রাম আবাসন প্রকল্পে বসবাসরত অর্ধশতাধিক অসহায় শীতার্ত পরিবারের পাশে শীত বস্ত্র নিয়ে হাজির হন মানবিক ইউএনও অমিত রায়। পরে তিনি অসহায় শীতার্ত পরিবারের সদস্যদের শীত বস্ত্র কম্বল দিয়ে জড়িয়ে দেন।

রাতে কম্বল বিতরণকালে আলিহাট ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আ. লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু সুফিয়ান, ইউপি সদস্য হারুন উর রশিদ, ইমরান আলী এবং বোয়ালদাড় ইউপি চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আ. লীগের সভাপতি ছদরুল ইসলাম, ইউপি সদস্য বকুল হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

কনকনে শীতের রাতে কম্বল পেয়ে সুইটি বেগম বলেন, রাতে ভাত খেয়ে সরকারি ঘুরে শুয়ে আছি হঠাৎ গাড়ির শব্দ। ঘুম থেকে উঠে দেখি ইউএনও স্যার কম্বল নিয়ে আমাদের আদর্শ গ্রামে এসেছেন। কনকনে শীত ও ঠান্ডা বাতাস বইছে এমন সময়ে গরমের কাপড় কম্বল পেয়ে আমি খুবই খুশি। আমি কিছু দিন পূর্বে স্বামী সন্তান নিয়ে খুবই কষ্টে ছিলাম। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ উপহার সরকারি ঘর পেয়ে আমি এখন স্বামী সন্তান নিয়ে খুবই আরামে আছি। গত কয়েক দিন থেকে আমাদের এই এলাকায় খুবই ঠান্ডা পড়েছে। কনকনে ঠান্ডায় ঘর থেকে বাহির হতে পারছি না। এমন শীতের রাতে হঠাৎ গরম বস্ত্র কম্বল পেয়ে আমি আনন্দিত। আমি ইউএনও স্যার ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জন্য দোয়া করি আল্লাহ যেন তাদের ভালো করেন।

ইউএনও অমিত রায় জানান, এই শীতের মধ্যে সবচেয়ে বেশি কষ্টে থাকে ছিন্নমূল অসহায় দরিদ্র মানুষগুলো। সরকারি আশ্রায়ন প্রকল্পে বসবাসরত মানুষগুলো এমনিতেই অসহায় ভাবে জীবন-যাপন করে থাকে। তাই জেলা প্রশাসক শাকিল আহম্মেদ মহোদয় এর দিক নির্দেশনা মোতাবেক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ উপহার শীতার্তদের জন্য কম্বল সবার আগে এদের মাঝে বিতরণ করতেছি।

দিনের বেলায় এ সকল লোকজন বিভিন্ন জায়গায় পেটের দায়ে কাজে ব্যস্ত থাকে বলে রাতের বেলায় খুঁজে খুঁজে তাদের হাতে কম্বল দিচ্ছি। ৬০ জন শীতার্ত পরিবারের সদস্যদের মাঝে কম্বল বিতরণ করেছি। ইতিমধ্যে উপজেলার একটি পৌর সভা ও তিনটি ইউনিয়নে আশ্রায়ন প্রকল্প সহ দুই হাজার শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। এ কম্বল বিতরণ চলমান থাকবে বলে উল্লেখ্য করে সমাজের বৃত্তবানদেরকে এসকল অসহায় শীতার্তদের পাশে দাঁড়ানোর আহবান জানান তিনি